কালিয়ায় দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১০, দুই বাড়ি ভাংচুর

0
428

আফজাল হোসেন কালিয়া (নড়াইল) প্রতিনিধি ঃ
স্থানীয় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে নড়াইলের কালিয়ায় দুই পক্ষের সংঘর্ষে অন্তত ১০ জন আহত হয়েছে। আহতদেরকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ও স্থানীয় ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। শনিবার সকালে উপজেলার পুরুলিয়ার মোড়ের পাশে ওই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষের চলাকালে দুইটি বাড়ি ভাংচুর করেছে প্রতিপক্ষের সমর্থকরা। ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে তিন জনকে আটক করেছে পুলিশ। এলাকায় থম থমে অবস্থা বিরাজ করছে।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, উপজেলার পুরুলিয়া গ্রামের আধিপত্য বিস্তার নিয়ে যুবলীগ নেতা জাকাতুর ফকির গ্রুপ ও স্থানীয় ইউপি সদস্য কোবাদ মোল্যা গ্রুপের মধ্যে দীর্ঘ দিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। শুক্রবার দুপুরে কোবাদ মোল্যার গ্রুপের লোকজন জাকাতুর ফকিরের সমর্থক সাবু ফকিরকে কুপিয়ে মারাতœাক ভাবে আহত করে। আহত সাবু ফকির বর্তমানে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। তারই জের ধরে শনিবার সকালে উভয় পক্ষের সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়লে উভয় গ্রুপের ইছাহাক মোল্যা (৫৫), ওবায়দুর সরদার (৩৪),কেনায়েত সরদার (৫৫) ও তানজিরা বেগমসহ (৩৮) অন্তত ১০জন আহত হয়। আহতদেরকে খুলনা মেডিক্যেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তিসহ স্থানীয় ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে পুলিশ টিপু সরদার (৫৫), রফিকুল সরদার (৩০) ও ছিদ্দিক মোল্যাকে (৪০) আটক করেছে। সংঘর্ষে চলাকালে কোবাদ মোল্যা গ্রুপের আমির হামজা ও আনোয়ার মোল্যার বাড়িতে ব্যাপক ভাংচুর চালিয়েছে প্রতিপক্ষের লোকজন।
কালিয়া থানার ওসি মো. রফিকুল ইসলাম বলেছেন, ওই ঘটনার সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে ৩ জনকে আটক করা হয়েছে। ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। কেউ অভিযোগ করেনি, অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here