কোটচাঁদপুরে গলায় ফাঁস দিয়ে সাবেক স্কুল শিক্ষকের আত্মহত্যা

0
245

 কোটচাঁদপুর (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি:
ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুরে মনিরুজ্জামান আজাদ (৭৩) নামে সাবেক এক স্কুল শিক্ষক গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। তিনি এলাঙ্গী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে সহকারী প্রধান শিক্ষক হিসাবে চাকুরী করতেন। সোমবার সন্ধ্যা ৫টার সময় কলেজ ষ্টান্ডের খন্দকার পাড়ার নিজ বাসা থেকে মরদেহটি উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।

কোটচাঁদপুর থানার এ এস পি আতিকুর রহসান ঘটনা স্থল পরিদর্শন করেছেন। কোটচাঁদপুর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মাহবুবুল আলম মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। নিহতের স্ত্রী জানান, আমি তালিম করার জন্য বাহিরে যাওযার পর ঘটনাটি ঘটে, বাসায় ফিরে দেখতে পাই আমার স্বামী লাশ ঘরের ফ্যানে ঝুলন্ত অবস্তায় আছে। আমার চিৎকারে এলাকাবাসী এসে লাশটি নিচে নামায়। নিহতের স্ত্রী আর জানান, সুদে টাকার লেনদেনের কারনে তার মৃত্যু হয়েছে।

মৃতঃ আজাদ টাকায় সুদ দিবে বলে ৫০ হাজার টাকা নেয় দির্ঘদিন ধরে সে লাখে ১০ হাজার টাকা করে সুদ দেয়। এমন এক সময় আসে সে সুদে টাকা না দিতে পেরে বাইরে অবস্তান করত। হঠাৎ কিছুদিন পর বাড়ি ফিরে আসায়  মোছাঃরমেলা খাতুন(৪৫) (স্বামী শুকুর আলী)মোছাঃআনোয়ারা খাতুন ওরফে মেজে বুড়ি (৩৫) তার কাছে টাকার জন্য চাপ দিতে থাকে ও আপত্বিকর ভাষায় গালাগালি দিতে থাকে  এক পর্যায়ে আজাদের স্ত্রী বলে তুমি যেভাবে পারো টাকা পরিশোধের ব্যবস্তা করো।

এতো কিছুর পরও আনোয়ারা খাতুন ওরফে মেজে বুড়ি  ক্ষান্ত হয়নি। এর মধ্যে টাকার সুদ বেড়ে ১০গুন হয়ে যায়।৫ লাখ টাকা দাবি করে  আজাদ (৭৩) টাকার চাপে এতে মানসিক ভাবে সে ভেঙ্গে পড়ে। সন্ধ্যায় পরে সবার অজান্তে ঘরের ভিতরে ওড়না দিয়ে ফ্যানের সঙ্গে ফাঁস দিয়ে  আত্মহত্যা করে এলাকায় জানাজানি হলে আনোয়ারা খাতুন ওরফে মেজে বুড়ি পালিয়ে যায়। কোটচাঁদপুর থানা পুলিশ ময়না তদন্তের জন্য আজাদের লাশ নিয়ে যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here