পার্বত্যঞ্চলে কোন সন্রাসীর ঠাই হবেনা… লে.কর্ণেল মোহাম্মদ নওরোজ নিকোশিয়ার

0
304

খাগড়াছড়ি :বাংলাদেশ সেনাবাহিনী পার্বত্য অঞ্চলে ১৯৭৬সাল থেকে পার্বত্য এলাকায় শান্তি শৃঙ্খলার কাজে নিয়োজিত আছে। সামনের দিনগুলোতে পাহাড়ের মানুষের উন্নয়নের স্বার্থে সেনাবাহিনী কাজ করবে। পাহাড়ে চাঁদাবাজদের কোন স্হান হবেনা আর তারা যে স্বপ্ন দেখছে পাহাড়ের পরিবেশ নষ্ট করে তারা সন্রাসী কর্মকান্ড চালিয়ে পাহাড়কে তাদের চাঁদাবাজির রাজ্য বানানোর যে চেষ্টাচালাচ্ছে তাহা পাহাড়ে যতদিন সেনাবাহিনী থাকবে কখনো এসব করতে দেওয়া হবেনা। পার্বত্য এলাকায় সরকারে ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হচ্ছে পাহাড়ের পর্যটন শিল্পের কারনে এলাকার অনেক মানুষের জীবিকা নিবাহের ব্যবস্হা হয়েছে বলে মন্তব্য করেন মাটিরাঙ্গা জোন অধিনায়ক  লে.কর্ণেল মোহাম্মাদ নওরোজ নিকোশিয়ার পিএসসি জি মাটিরাঙ্গা জোনের  মাসিক নিরাপওা সম্মেলনের সভাপতির  বক্তব্যয়ে এসব কথা বলেন তিনি।

তিনি আরো বলেন,দুর্গাপুজাকে সামনে রেখে কোন ধরনের সন্ত্রাসী তৎপরতা বরদাস্ত করা হবেনা জানিয়ে তিনি বলেন, সন্ত্রাসী তৎপরতার মাধ্যমে পাহাড়ে সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ডকে ম্লান করতে দেয়া হবেনা।

সোমবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে জোন সদরে অনুষ্ঠিত মাটিরাঙ্গা জোনের মাসিক আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনিময় সভায় সভাপতির বক্তব্যে মাটিরাঙ্গা জোন অধিনায়ক লে. কর্নেল নওরোজ নিকোশিয়ার পিএসসি, জি এসব কথা বলেন।

মাটিরাঙ্গা জোনের মাসিক নিরাপওা সম্মেলনে অন্যান্যের মাঝে উপস্হিত ছিলেন মাটিরাঙ্গা জোনের জোনাল স্টাফঅফিসার মেজর মো:শাকিল আরেফিন,মাটিরাঙ্গা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো:রফিকুল ইসলাম,মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ,মাটিরাঙ্গা সহকারি কমিশনার (ভূমি) অমিত চক্রর্বতী,মাটিরাঙ্গা থানার ওসি তদন্ত মো:শাহনুর,গুইমারা থানার অফিসার ইনচার্জ বিদ্যুৎ বড়ুয়া,মাটিরাঙ্গা সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিরন জয় এিপুরা,মাটিরাঙ্গা প্রেসক্লাবে সভাপতি এমএম জাহাঙ্গীর আলম,প্রমুখ।
মাসিক নিরাপওা সম্মেলনে বিভিন্ন এলাকার হেডম্যান,কার্বারী,জনপ্রতিনিধি,বিভিন্ন দপ্তরের প্রধান,সাংবাদিক বৃন্দ উপস্হিত ছিলেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here